pytheya.blogspot.com Webutation

১০ মার্চ, ২০১২

Dagon: দেবমন্দিরে নিয়ম সিন্দুক।


একসময় প্যালেষ্টীয়রা প্রাচীন যিবুষের (জেরুজালেমের) দিকে অগ্রসর হল এবং একটি যুদ্ধে চার হাজার হিব্রুকে হত্যা করল। এ কারণে পরবর্তী যুদ্ধের সময় ইস্রায়েলীরা জয়লাভের আশায় নিয়ম সিন্দুক (Ark of the Covenant) সঙ্গে নিয়ে যাবার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করল। এলির পুত্র পীনহস ও হফনি নিয়ম সিন্দুকের সঙ্গে গেল। 

নিয়ম সিন্দুক হল শিটীম কাঠের একটি বাক্স। এই বাক্স ছিল ৩ ফুট ৯ ইঞ্চি দীর্ঘ, ২ ফুট ৩ ইঞ্চি প্রস্থ ও ২ ফুট ৩ ইঞ্চি উচ্চ, যার অভ্যন্তর ও বহির্ভাগ খাঁটি স্বর্ণপাতে মোড়া। সিন্দুকের চারি পায়াতে রয়েছে চারটি স্বর্ণের কড়া। আর স্বর্ণ মোড়ান শিটীম কাঠের দু‘টি বহন দন্ড সিন্দুকের দুই পার্শ্বস্থ ঐ কড়াতে প্রবেশ করান ছিল। এই সিন্দুকে মূসাকে খোদা প্রদত্ত দশ আজ্ঞার সেই প্রস্তর ফলক দু’টি রাখা হয়েছিল। সিন্দুকের উপরে ছিল একটি পাপাবরণ। পাপাবরণ হল ৩ ফুট ৯ ইঞ্চি দীর্ঘ এবং ২ ফুট ৩ ইঞ্চি প্রস্ত একটি পেটান স্বর্ণের ফলক, যার দু‘প্রান্তে অখন্ড দু‘টি করূব মুখোমুখি উর্দ্ধে পক্ষ বিস্তার করে ঐ পাপাবরণকে আচ্ছাদিত করে রেখেছে। করূবদ্বয়ের দৃষ্টি নিবদ্ধ ঐ পাপাবরণের দিকে। 

পীনহস ও হফনি সিন্দুকের সঙ্গে।
সাক্ষ্য সিন্দুকটি সেনা ছাউনিতে এসে পৌঁছিলে ইস্রায়েলীরা এমন জোরে চিৎকার শুরু করল যে, চতুর্দিকে সাড়া পড়ে গেল। প্যালেস্টীয়রা এই আওয়াজ শুনে একে অন্যেকে জিজ্ঞেস করল, ‘ইব্রীয়দের ছাউনিতে এ কিসের আওয়াজ হচ্ছে?’

নিয়ম সিন্দুক।
তারা খোঁজ করে জানতে পারল- ইস্রায়েলীদের দেবতা- খোদার সাক্ষ্য সিন্দুকটি তাদের ছাউনিতে এসেছে। এতে তারা ভয়ার্ত কন্ঠে বলল,‘সর্বনাশ! এই শক্তিশালী দেবতার হাত থেকে কে আমাদেরকে রক্ষা করবে? মরুএলাকায় নীল নদের পানিতে ডুবিয়ে এই দেবতাই তো মিসরীয়দের মেরে ফেলেছিলেন। হে প্যালেস্টীয়রা! প্রস্তুত হও, যুদ্ধ কর, তা না হলে ইব্রীয়রা যেমন তোমাদের দাস হয়েছিল, তেমনি তোমরাও তাদের দাস হয়ে থাকবে।’ 

এলি আসন থেকে ঢলে পড়ে গেলেন । 
একটি ভয়াবহ যুদ্ধ শুরু হল। প্যালেষ্টীয়রা নতুন উদ্যমে যুদ্ধ করে নিয়ম সিন্দুক দখল করল এবং ত্রিশ হাজার ইস্রায়েলীকে হত্যা করল। নিহতদের মধ্যে পীনহস ও হফনিও ছিল। 

পথের পাশে একটা আসনে বসে অধীর আগ্রহে এলি (Eli) যুদ্ধ সংবাদের প্রতীক্ষা করছিলেন। এসময় যুদ্ধ ক্ষেত্র থেকে এক ব্যক্তি দৌঁড়ে এসে ব্যক্তিগত ভাবে তাকে জানাল- ‘শত্রুরা সিন্দুক দখল করেছে, আর পীনহস ও হফনি যুদ্ধে নিহত হয়েছেন।’ 

এই দুঃসংবাদ শুনেই এলি নিজ আসন থেকে পিছনে ঢলে পড়ে গেলেন এবং ঘাড় ভেঙ্গে মৃত্যুবরণ করলেন। তার বয়স এসময় হয়েছিল আটানব্বুই বৎসর। এদিকে পীনহসের স্ত্রী, স্বামী ও শ্বশুরের মৃত্যু সংবাদ শুনে অপূর্ণ সময়ে এক পুত্রসন্তান জন্ম দিয়ে মারা গেল। 

নিয়ম সিন্দুক প্যালেস্টীয়দের মধ্যেই রইল। তারা সেটি এবন-এষর থেকে অসদোদ শহরে নিয়ে গেল। সিন্দুকটি তারা দাগোন (Dagon) দেবতার মন্দিরে নিয়ে গিয়ে দাগোনের মূর্ত্তির পাশেই রাখল। 

দাগোন দেবমন্দিরে নিয়ম সিন্দুক।
পরদিন প্রত্যুষে অসদোদের লোকেরা দেখল, দাগোন সিন্দুকের সামনে উপুড় হয়ে পড়ে আছে। তারা তখন মূর্ত্তিটা তুলে নিয়ে তার জায়গায় রাখল। তার পরদিনও তারা দেখল দাগোন সিন্দুকের সামনে আগের দিনের মতই মাটিতে পড়ে আছে। তারা আবারও মূর্ত্তিটাকে তার নিজের জায়গায় রাখল। তার পরের দিনও একই ঘটনা ঘটল আর তারা আবারও তাকে তার জায়গায় রাখল। 

প্রথম প্রথম পুরোহিতরা ঘটনাটিকে আমলে না আনলেও প্রতিদিন একই ব্যাপার ঘটতে থাকায় তাদের মনে সন্দেহের উদ্রেক হল। তাছাড়া এটি তাদের মধ্যে থাকায় তারা মহামারীতেও আক্রান্ত হল। তাদের মলদ্বারে টিউমার রোগ দেখা দিল এবং অনেক লোক মারা যেতে লাগল। 

অত:পর একদিন প্রত্যুষে পুরোহিতরা মন্দিরে গিয়ে দেখল দেবতা দাগোন পূর্বের মতই পড়ে আছে। আর তার মাথা ও হাত ভেঙ্গে দরজার চৌকাঠের উপর ছড়িয়ে আছে, কেবল দেহের বাকি অংশটুকু আস্ত রয়েছে। এজন্যে দাগোনের পুরোহিত এবং অন্য যারা অসদোদে দাগোনের মন্দিরে প্রবেশ করে, আজও তাদের কেউই সেই মন্দিরের চৌকাঠের উপর পা রাখে না। 

অসদোদ, ২০০৫
এই অবস্থা দেখে অসদোদের লোকেরা স্থির নিশ্চিত হল ইস্রায়েলীদের দেবতা, খোদার সিন্দুকটি দেব মন্দিরে রাখার কারণেই এসব হচ্ছে। তারা ভীত হয়ে পড়ল। সুতরাং গণ্যমান্য ব্যক্তিরা নিজেদের মধ্যে আলোচনায় বসল এবং এ বিষয়ে ঐক্যমতে পৌঁছিল যে, সিন্দুকটি তারা আর তাদের মাঝে রাখবে না। 

সুতরাং অসদোদের শাসনকর্তাকে একথা জানান হল- ‘আমরা ইস্রায়েলীদের দেবতা, খোদার সিন্দুকটা আমাদের কাছে আর রাখব না, কারণ তিনি আমাদের দেবতা দাগোনকে ভীষণভাবে আঘাত করেছেন আর এখন আমাদেরকেও আঘাত করছেন।’

লোকেরা অসদোদের শাসনকর্তার নিকট প্রশ্ন রাখল, ‘ইস্রায়েলীদের দেবতা খোদার সিন্দুকটা নিয়ে আমরা এখন কি করব?’
তিনি বললেন, ‘সিন্দুকটা গাদ শহরে নিয়ে যাওয়া হোক।’

নিয়ম সিন্দুকটি অসদোদ থেকে গাদে নিয়ে যাওয়া হল। সেটি সেখানে নিয়ে গেলে সেখানকার লোকেরাও টিউমার রোগে আক্রান্ত হল। এতে তারা ভীষণ ভয় পেল। এ কারণে তারা দেরী না করে সিন্দুকটি ইক্রোণ শহরে পাঠিয়ে দিল। 

সিন্দুকটি ইক্রোণে নেয়া হলে সেখানকার লোকেরা চিৎকার করে গাদীয়দেরকে বলল, ‘আমাদেরকে ধ্বংস করার জন্যেই কি তোমরা সিন্দুকটা আমাদের কাছে নিয়ে এসেছ?’

ইক্রোণের লোকেরা তখুনি দূত পাঠিয়ে প্যালেস্টীয় সব শাসনকর্তাদের একস্থানে সমবেত করে বলল, ‘সিন্দুকটা এখান থেকে পাঠিয়ে দেন। ওটা তার নিজের জায়গাতেই ফিরে যাক। তা না হলে ওটা আমাদের সকলকেই মেরে ফেলবে।’

প্যালেষ্টীয়দের টি 
সিন্দুকটি সাত মাস পর্যন্ত প্যালেস্টীয়দের দেশে ছিল। এসময় টিউমার রোগের পাশাপাশি দেশে প্রচন্ড ইঁদুরের উৎপাত দেখা দিয়েছিল।প্যালেস্টীয় শাসনকর্তারা তাই পুরোহিত ও গণকদের ডেকে জিজ্ঞেস করল, ‘আমরা এই সিন্দুকটি নিয়ে কি করব? বা কিভাবে আমরা এটাকে তার নিজের জায়গায় পাঠিয়ে দেব?’

তারা বলল, ‘আপনারা যদি ইস্রায়েলীদের দেবতার সিন্দুকটা পাঠিয়েই দেন তবে তা খালি পাঠাবেন না। আপনারা অবশ্যই তাঁর কাছে একটা দোষ উৎসর্গ পাঠিয়ে দেবেন। তাহলে আপনারাও সুস্থ্য হবেন এবং জানতে পারবেন, কেন তাঁর কঠোর হাত আপনাদের উপর থেকে সরে যাচ্ছে না।’
শাসনকর্তারা জিজ্ঞেস করল, ‘দোষ উৎসর্গ হিসেবে আমরা তাঁর কাছে কি পাঠিয়ে দেব?’

তারা বলল, ‘প্যালেস্টীয় শাসনকর্তাদের সংখ্যা অনুসারে (অসদোদ, গাজা, অস্কিলোন, গাদ ও ইক্রোণ) পাঁচটা সোনার টিউমার ও ইঁদুর পাঠিয়ে দিন। কারণ, লোকদের উপর এবং শাসনকর্তাদের উপর একই আঘাত এসেছে। যে টিউমার রোগ আপনাদের শরীরে দেখা দিয়েছে এবং যে ইঁদুর আপনাদের দেশ ধ্বংস করে দিচ্ছে আপনারা সেগুলোর মূর্ত্তি তৈরী করুন, আর ইস্রায়েলীদের দেবতা খোদার প্রশংসা করুন। তাহলে হয়তঃ তিনি আপনাদের উপর থেকে এবং আপনাদের দেবতার উপর থেকে তাঁর কঠোর হাত সরিয়ে নেবেন। আপনারা কেন ফেরাউন ও মিসরীয়দের মত করে নিজেদের মনকে কঠিন করছেন? ইস্রায়েলীদের খোদা যখন মিসরীয়দের বোকা বানিয়েছিলেন তখন তারা ইস্রায়েলীদের যেতে দিয়েছিল, আর তারা চলে গিয়েছিল।

গরুর গাড়ীতে নিয়ম সিন্দুক।
--এখন আপনারা একটা নতুন গাড়ি তৈরী করুন এবং দুধ দেয় এমন দু'টো গাভী নিন যাদের উপর কখনও জোয়াল চাপান হয়নি। সেগুলো আপনারা সেই গাড়িতে জুড়ে দেবেন, কিন্তু তাদের বাছুরগুলো তাদের কাছ থেকে সরিয়ে নিয়ে যাবেন। তারপর খোদার সিন্দুকটি আপনারা সেই গাড়ির উপর বসাবেন এবং দোষ উৎসর্গের জন্যে যেসব সোনার জিনিস আপনারা খোদাকে দেবেন সেগুলো একটা বাক্সের মধ্যে করে সিন্দুকের পাশে রাখবেন। এভাবে সিন্দুকটি পাঠিয়ে দেবেন যাতে সেটি চলে যায়। সিন্দুকটি যদি নিজের দেশের পথ ধরে বৈৎ-শেমসে যায় তবে বুঝবেন আপনাদের উপর এই ভীষণ অমঙ্গল খোদাই এনেছেন। কিন্তু, যদি সেই পথে না যায়, তবে বোঝা যাবে লোকদের উপর এই আঘাত তাঁর হাত থেকে আসেনি, এমনিই তা আপনাদে উপর এসেছে।’

পুরোহিত ও গণকদের নির্দেশ মত সবকিছু তৈরী করা হল। আর গাভী দু’টো ডানে বায়ে না ঘুরে ডাকতে ডাকতে সিন্দুকটি নিয়ে রাজপথ দিয়ে সোজা বৈৎ-শেমসের দিকে চলল। প্যালেস্টীয় শাসনকর্তারা গাড়ীটি অনুসরণ করে বৈৎ-শেমসের সীমানা পর্যন্ত এল।

বৈৎ-শেমসের লোকেরা উপত্যকার মধ্যে গম কাটছিল। তারা চোখ তুলে চাইতেই গরুর গাড়ীটিকে এগিয়ে আসতে দেখল। অতঃপর সেটি নিকটবর্তী হলে সিন্দুকটি তাদের নজরে পড়ল। তারা খুশীতে চিৎকার চেঁচামেচি করতে লাগল।

গাড়িটা এসে ইউশায়ার ক্ষেতের মধ্যে একটা বড় পাথরের পাশে থামল। এসময় লেবীয়রা এগিয়ে এসে সিন্দুকটি এবং উৎসর্গীত জিনিসসুদ্ধ বাক্সটি নামিয়ে ঐ বড় পাথরটির উপর রাখল। অতঃপর তারা সেই গাড়িটির কাঠ কেটে ঐ দু’টো গাভী দিয়েই খোদার উদ্দেশ্যে সেদিনই পোড়ান উৎসর্গের অনুষ্ঠান করল। আর প্যালেস্টীয় শাসনকর্তারা সবকিছু দেখে সেদিনই ইক্রোণে ফিরে গেল। 

সমাপ্ত।
ছবি: princeofpeacesermons.blogspot, prayerthoughts, commons.wikimedia, members.bib-arch, masterfile.

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন